leadershipএকজন পছন্দনীয় ব্যক্তি হয়ে উঠলে পারলে তা আপনার চাকরি, ব্যবসা, ব্যক্তিগত সম্পর্ক এবং জীবনে অনেকভাবে সাহায্য করে। একজন ভাল নেতা হওয়ার জন্য যে গুনগুলো দরকার তার সবগুলোই কিন্তু সহজ, কিন্তু লাভের আশায় বা অন্য চিন্তায় মগ্ন থাকতে থাকতে আমরা এই সহজ বিষয়গুলোকে অনেক সময় ভুলে যাই। কিন্তু এই বিষয়গুলোই আমাদেরকে মানুষ হিসেবে বেড়ে উঠতে  এবং যেকোন ক্ষেত্রে সফল হতে সাহায্য করে। নিম্নে ১১টি গুরুত্বপূর্ণ ধারণা দেওয়া হল যা আপনাকে একজন ভাল নেতা হতে সাহায্য করবেঃ

 

. কথা শোনা

যখন মানুষ কথা বলে, তা পূর্ণভাবে শোনো। অধিকাংশই অন্যদের কথা কখনও শোনে না.” – আর্নেশট হেমিংওয়ে

 

যেকোন সুসম্পর্কের জন্য অন্যদের কথা শোনা বেশ গুরুত্বপূর্ণ। গ্রাহকরা কী চায় এবং তাদের কী দরকার সে ব্যাপারে ভাল নেতারা মনযোগ দেয়। গ্রাহকরা কী কী চ্যালঞ্জের মুখোমুখী তা তারা ভাল করে শোনে। তারা তাদের সহকর্মীদের কথাও শোনে এবং যেকোন নতুন আইডিয়াকে স্বাগত জানায়। এছাড়াও, তারা শেয়ারহোল্ডার, বিনিয়োগকারী এবং প্রতিযোগীদের কথাও শোনে।

 

 

. গল্প বলা

আজকের পৃথিবীর আইডিয়াগুলোকে তুলে ধরার সবচেয়ে ভাল মাধ্যম হল গল্প বলা” –বার্ট ম্যাকাফি ব্রাউন

 

কথা শোনার পর, পণ্য বিক্রি করার জন্য নেতাদেরকে একটি ভাল গল্প বলতে হবে, তবে গুরত্বপূর্ণ হল, পণ্যের সাথে আইডিয়ারও বিপণন করা। গল্প বলার মাধ্যমে মানুষদেরকে আকৃষ্ট করা যায় এবং তাদেরকে কোন একটি পদক্ষেপ নিতে উদ্বুদ্ধ করা যায়। মধ্যাহ্ন ভোজের বিরতিতে বা ভরা বোর্ডরুমের সামনে বা হাজার হাজার মানুষ দেখছে এমন কোন অনলাইন ভিডিও – যাই হোক না কেন, গল্প বলা সবখানেই কাজে আসে।

 

 

. শুদ্ধতা

আমি জানতাম না যে নিজের শুদ্ধতা তুলে ধরে আমি আজকে এই সফল অবস্থানে আসতে পারব, যদি জানতামই তাহলে আমি অনেক আগেই এমনটি করতাম” –পরাহ উইনফ্রে

ভাল নেতারা নিজেদের ভেতর যা আছে যেটাই তুলে ধরে এবং তাদের সততার কোন তুলনা হয় না। নিজের দুর্বলতা এবং বিনয় একজন নেতাকে মহান বানায় এবং একটি ইতিবাচক শক্তির সঞ্চার হয়। গ্রাহক, কর্মচারী এবং মিডিয়া সবাই চায় একজন শুদ্ধ মনের নেতা সাফল্য লাভ করুক। একটা সময় ছিল যখন একজনের পাবলিক ভাবমূর্তি তার ব্যক্তিগত জীবন থেকে আলাদা ছিল কিন্তু এখন সোশ্যাল ইন্টারনেটের কারণে সে বিভেদ দূর হয়েছে, এখন নেতারা তাদের ব্যক্তিগত ও পেশাগত জীবন একত্রিত করতে পারেন।

 

 

. স্বচ্ছতা

একজন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী হিসেবে, সততার চেয়ে আপনার জন্য বড় আর কোন শক্তি নেই” –জন হোয়াইটিয়ার

কোন কিছু লুকিয়ে রেখে লাভ নেই আর যেসব ব্যবসায়ীরা সিক্রেট রাখেন, তাদের মুখোশ এক সময়ে কিন্তু উন্মোচিত হয়েই যায়। সরলতা এবং সততা আপনার কর্মচারী, গ্রাহক আর সহকর্মীদেরকে খুশি রাখবে। আর ভাল দিক হচ্ছে, স্বচ্ছতা নিশ্চিত হলে রাতে আপনি চিন্তামুক্তভাবে শান্তিতে ঘুমাতে পারবেন। এবং একজন হাসিখুশি নেতা কার্যক্ষমও হয়ে থাকে।

 

. দলগত কাজ

একজন ব্যক্তি একা খেলতে পারে, কিন্তু দলগতভাবে সব বাধা পেরিয়ে জয় আসতে পারে” –সিল টিমের বাণী

 

আপনার সংস্থা যতই ছোটই হোক না কেন, প্রতিদিনই আপনাকে কারো না কারো সাথে দেখা করতেই হয়। অন্যদের সাহায্য করা, উদ্ভাবনী আইডিয়াকে গুরুত্ব দেওয়া, বিনয়ী হওয়া এবং দলগত ভাবে কাজ করার অন্যান্য নিয়ম মেনে চললে আপনি সবার পছন্দের নেতাতে পরিণত হতে পারবেন। আপনার সংস্থায় সাফল্যের একটি সংস্কৃতি আপনাকে প্রচলন করতে হবে, যাতে সবাই গতানুগতিক ধারার বাইরে গিয়ে কিছু চিন্তা করতে পারে।

 

 

. প্রতিক্রিয়াশীল হওয়া

জীবন হল ১০% যা আপনার সাথে ঘটবে এবং ৯০% আপনি কীভাবে তার প্রতি প্রতিক্রিয়া দেখাবেনচার্লস সুইনডল

ভাল নেতারা তাদের গ্রাহক, কর্মচারী, বিনিয়োগকারী এবং সম্ভাব্য ব্যক্তিত্বদের প্রতি প্রতিক্রিয়াশীল। একজন সফল নেতা ভবিষতের সম্ভাবনা উপলব্ধি করে একটি প্রতিক্রিয়াশীল সংস্কৃতির উপর গুরুত্ব আরোপ করবে। যোগাযোগের মাধ্যম যাই হোক না কেন (ইমেইল, ভয়েস মেইল, একটি নোট বা একটি টুইট), আপনার প্রতিক্রিয়া এটাই প্রমাণ করবে যে আপনি অন পক্ষের প্রতি যত্নশীল এবং আপনার গ্রাহক ও সহকর্মীরাও তাদের কথা বলার সুযোগ পাবে যা আপনার সংস্থার উপর একটি ইতিবাচক প্রভাব ফেলে।

 

 

. মানিয়ে নেওয়া

পরিবর্তন শেষ হয়ে গেলে, আপনিও শেষ হয়ে যাবেন” –বেন ফ্রাংকলিন

বর্তমানের মার্কেটপ্লেসের মত সদা ও দ্রুত পরিবর্তনশীল বাজার কিন্তু আগে তেমন ছিল না। পরিবর্তনশীলতার সুযোগ ও চ্যালেঞ্জের ব্যাপারে নেতাদেরকে নমনীয় হতে হবে এবং সঠিক সময়ে সঠিক কাজটি করার ক্ষমতা থাকতে হবে। অনেক প্রতিষ্ঠানে জেদ ধরে রাখায় কোন সুফল বয়ে আসে না। এর পরিবর্তে, বিনয় এবং মানিয়ে নেওয়ার ক্ষমতাই একজনকে ভাল নেতা বানাতে পারে।

 

 

. কাজের প্রতি ভালবাসা

যখন আপনি আপনার কাজকে ভালবাসবেন, তখনই আপনি ভাল কাজ করতে পারবেন” –স্টিভ জবস

যারা তাদের কাজকে ভালবাসে, তাদের কাছে প্রতিদিনকার কাজকে আর বোঝা মনে হয় না। যারা নিজেদের কাজের মধ্যে ভালবাসা নিয়ে আসতে পারে তাদের একটি সুবিধা রয়েছে, তাদের এই ভালবাসা তাদের গ্রাহক এবং সহকর্মীদের মাঝেও ছড়িয়ে যায়। নিজের ভালবাসার জায়গাটার সন্ধান পাওয়া এবং তা লালন করা আপনার আশপাশের পরিবেশকেও প্রভাবিত করতে বাধ্য।

 

 

. চমক এবং আনন্দ

একজন সত্যিকারের নেতা সব সময়ে একটি চমক রেখে দেন যা অন্যরা বুঝে উঠতে পারে না, কিন্তু তা ঠিকই পাবলিকদের আকৃষ্ট করে থাকে” চার্লস ডি গল

 

অনেকে আছেন যারা তাদের প্রাত্যহিক জীবনে চমক পছন্দ করে। পছন্দনীয় নেতারা ছোট ছোট ওয়াদা করে কিন্তু সে অনুযায়ী বেশি বেশি দিয়ে থাকে, যাতে গ্রাহক এবং কর্মচারীরা ইতিবাচকভাবে চমকিত হতে পারে। বাড়তি টাকা খরচ না করে চমক দেওয়ার অনেক উপায় রয়েছে – যেমন একটি সুন্দর হাসি। চমক এবং আনন্দের বিষয়গুলো কিন্তু আপনার প্রতিষ্ঠানের নাম সবার মুখে মুখে ছড়িয়ে দিতে পারে।

 

 

১০. সরলতা

কম বেশি হয় নাঃ শুধু যথেষ্ট থাকাটাই বেশি” –মিল্টন গ্লেসার

অতীতের চেয়ে এখন এই শব্দটি বেশ জটিল হয়ে গেছে, তারপরও গ্রাহকরা সরলতাকে এখনও প্রাধান্য দিয়ে থাকে – ডিজাইন, আকার এবং কাজের মধ্যে সরলতা। কোন জটিল প্রকল্প, চ্যালেঞ্জ বা আইডিয়াকে নিয়ে তা সরলভাবে তুলে ধরা হলে আপনার গ্রাহক, কর্মচারী এবং অন্য স্টেকহোল্ডারেরা তা আরো ভালভাবে বুঝবে এবং আপনার দৃষ্টিভঙ্গির সাথে একাত্ম হয়ে যেতে পারবে। আমরা সবাই সরলতা চাই সবখানে, তাই আজকদের দিনের নেতাকেও সরলতার উপর গুরুত্ব দিয়ে তা কাজের মাধ্যমে ফুটিয়ে তুলতে হবে।

 

 

১১. কৃতজ্ঞতা

আমি সবসময় মানি যে ধন্যবাদ জ্ঞাপন হল চিন্তার সর্বোচ্চ পর্যায় এবং কৃতজ্ঞতা হল বিস্ময় দ্বারা দ্বিগুণ করা আনন্দ” গিলবার্ট চেস্টারটন

 

পছন্দনীয় নেতারা তাদের কাজে ও সাফল্যে যাদের অবদান আছে তাদের প্রতি সবসময় কৃতজ্ঞ থাকে। অন্যের তারিফ করে এবং মেন্টর, গ্রাহক, সহকর্মী ও অন্য স্টেকহোল্ডারদের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করার মাধ্যমে নেতাদের বিনয় ফুটে উঠে এবং অন্যরা তাদেরকে ভাল চোখে দেখতে শুরু করে। এবং তারাও এতে ভাল বোধ করে! গবেষণায় দেখা গেছে দাতারা যদি কারো কাছে থেকে হাতে লিখিত ধন্যবাদ নোট পায় তাহলে তাদের মধ্যে ৩৮% পরবর্তী আবার দান করতে উদ্বুদ্ধ হয়।

[অনুবাদ]

Similar Posts

Leave a Reply